সরকারি বর্দি সরকারি মোটরসাইকেল নিয়ে হেলমেট বিহীন এক বনদপ্তর এর উচ্চপদস্থ কর্মী, নীরব ভূমিকায় তেলিয়ামুড়া ট্রাফিক বিভাগ।

0
138

এিপুরা – তেলিয়ামুড়া, রাহুল দাসঃ- একেই বলে সরকারি পাওয়ার। সরকারি বর্দি সরকারি মোটরসাইকেল নিয়ে হেলমেট বিহীন এক বনদপ্তর এর উচ্চপদস্থ কর্মী। নীরব ভূমিকায় তেলিয়ামুড়া ট্রাফিক বিভাগ।
আইনের ধারক ও বাহকরাই যখন‌ আইনের তোয়াক্কা না করে আইনকে বুক ফুলিয়ে অমান্য করেন তখন ধরে নিতেই হয় সমাজে ভারসাম্যহীনতা আসন্ন। সাধারণ মানুষ কোন কারনে হেলমেট ব্যবহার না করে দ্বিচক্র যান চালালে ট্রাফিক বা পুলিশ বাবুরা আইনের দোহাই দিয়ে নানান ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করে থাকেন, কিন্তু আজ অর্থাৎ শুক্রবার তেলিয়ামুড়ায় ধরা পড়ল বিপরীত ছবি।
বন দফতরের আধিকারিক পর্যায়ের কর্মী রবীন্দ্র দেববর্মা বীরের মত হেলমেট ছাড়া ইউনিফর্ম পরিহিত হয়ে ঘুরছেন।
এই দৃশ্য দেখে পুলিশ কোন ভূমিকা না নিলেও স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমের কর্মীরা এই বিষয়টা নিয়ে সরব হয়েছেন বন দপ্তরের কর্মীকে সাংবাদিকরা তরফ থেকে যখন জিজ্ঞেস করা হয় তিনি হেলমেট ছাড়া বাইক চালাচ্ছেন কেন, তখন তিনি খোলামেলা বললেন ইউনিফর্ম আছে বলে ব্যবহার করতে হয় না হেলমেট। এই বিষয়টা অন রেকর্ড আছে।
তাহলে প্রশ্ন হচ্ছে কবে থেকে এই আইন হলো যে বন দপ্তর বা পুলিশকর্মীদের ইউনিফর্ম থাকলে হেলমেট লাগবে না? যদি এরকম নীতি নির্দেশিকা থাকে তাহলে প্রশাসন থেকে কেন প্রকাশ করা হচ্ছে না? যদি ইউনিফর্ম পরিহিত অবস্থায় হেলমেট ছাড়া বাইক চালানো দণ্ডনীয় অপরাধ বা আইনের অমান্য করা বুঝায় তাহলে এই করিৎকর্মা বন দপ্তরের কর্মীর বিরুদ্ধে প্রশাসন কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করবে কিনা এটাই এখন লাখ টাকার প্রশ্ন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here