প্রাকৃতিক দুর্যোগ কে উপেক্ষা করেই, মাটির মানুষ মৃৎ শিল্পীদের সম্মেলন নদীয়ার শান্তিপুরে, ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনে মিললো সরকারি আর্টিসান কার্ড।

0
185

নদীয়া, নিজস্ব সংবাদদাতা:- শান্তিপুর রামনগর পাড়ার ময়দানে অনুষ্ঠিত হলো নদিয়া জেলা অনুন্নত কুম্ভ কার সম্প্রদায়ের উদ্যোগে নদিয়া জেলা সম্মেলন , বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, এবং প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের সম্বর্ধনা প্রদান এবং কুম্ভ কার সম্প্রদায়ের ভুক্ত মানুষের পরিচয় পত্র প্রদান করা হয় এই সম্মেলনে । উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে আমন্ত্রিত নদীয়া জেলার অন্তর্গত কৃষ্ণনগর শহরের রাষ্ট্রপতি পুরস্কার প্রাপ্ত মৃৎ শিল্পী সুবীর পাল এবং তার সাথে উপস্থিত ছিলেন শিল্পী সঞ্জয় পাল । উক্ত অনুষ্ঠানের শুভারম্ব ঘটলো সোনার তরী ড্যান্স অ্যাকাডেমি কর্তৃক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে।


তবে উক্ত অনুষ্ঠানে র মূল লক্ষ্য হলো সমস্ত কুম্ভ কার সম্প্রদায় ভুক্ত মানুষের পরিচয় পত্র প্রদান এবং সরকারের কাছে তাদের বিভিন্ন দাবি দাবা বা সুবিধা অসুবিধার কথা তুলে ধরা । সাম্প্রতিক করোনা পরিস্থিতিতে দুর্বিষহ পরিস্থিতির শিকার হয়েছেন মৃৎ শিল্পীবৃন্দ বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতৃত্ব থেকে জনপ্রতিনিধি পৌঁছেছিলেন সকলের দ্বারে দ্বারে । বহু পুরনো সংগঠনের নব প্রজন্মের কুম্ভকারা নতুনভাবে সংগঠিত করেছিলেন নিজেদের, আর তার ফলেই আজ নদীয়া জেলার প্রায় প্রত্যেক শিল্পী পেয়েছেন সহকারী আর্টিসন কার্ড। সংগঠনের জেলা সম্পাদক মুন্না পাল বলেন, বংশগতভাবে কুম্ভকার না হওয়া সত্ত্বেও অনেক গুণী শিল্পী মাটির কাজ করে থাকেন তাদের সংগঠনে অন্তর্ভুক্তির জন্য আহ্বান জানান।
কৃষ্ণনগর থেকে আগত রাষ্ট্রপতি পুরস্কার প্রাপ্ত মৃৎশিল্পী সুবীর পাল জানান, পুরনো অভিজ্ঞতা এবং নতুন তথ্য প্রযুক্তির মেলবন্ধনে নিজেদের কর্মনিপুণ করে তুলতে হবে। জেলা এবং ভিনজেলা থেকে পাঁচ শতাধিক কুম্ভকার সম্প্রদায়ের মানুষ এই সম্মেলনে যোগ দেন বলেই জানা গেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here