শান্তিকুঞ্জের ওপরে ড্রোন উড়িয়ে ফের প্রাইভেসি নষ্ট করা হচ্ছে ও নজরদারির অভিযোগ দিব্যেন্দু অধিকারির।

0
315

নিজস্ব সংবাদদাতা,পূর্ব মেদিনীপুর:- পূর্ব মেদিনীপুর জেলার তমলুকের সাংসদ তথা অধিকারী পরিবারের সেজো ছেলে দিব্যেন্দু অধিকারি অভিযোগ করে বলেন মহামান্য আদালতের নির্দেশের পরেও আজ সকালে অর্থাৎ শুক্রবার সকালে আমার পরিবারের ওপরে ড্রোন উড়িয়ে সিভিল ড্রেসে কে বা কারা নজরদারি চালানচ্ছে। এই ব্যাপারে আমি দলকে ও লোকসভার স্পিকার কে সমস্ত বিষয় জানাবো। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আমার নেত্রী সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় আমার পরিষদীয় দলনেতা। কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায় চিফ হুইপ আমি উনাদেরকে শ্রদ্ধা করি সম্মান করি। আমি একজন তৃণমূল সাংসদ হয়েও আমার ফোন জেলাশাসক ধরেন না। পুলিশ প্রশাসন কথা শোনে না আমার অত্যন্ত দুর্ভাগ্য বললেন দিব্যেন্দু অধিকারি। পরিবারের পক্ষে শুভেন্দু বাবু মহামান্য উচ্চ আদালতে প্রাইভেসি নষ্ট নিয়ে মাইক সিসিটিভি নিয়ে মামলা করেছিলেন তার রায় দিয়েছে। স্পেলিং রাজনৈতিকভাবে অন্যদল করেন। পরিবারের কথা ভেবেই পদক্ষেপ নিয়েছিলেন। ফের ড্রোন ওড়ানোর ঘটনায় আদালতে যেতে পারেন। সকাল সকাল ড্রোন’ ওড়ানোর জন্য নিজে প্রত্যক্ষ করেছেন এবং মোবাইল ক্যামেরাবন্দি করেছেন বলেও জানান দিব্যেন্দু অধিকারি। তিনি আরো জানান কলেজ ক্যাম্পাস থেকেই ধরনের ড্রোন উড়ানো হচ্ছিল প্রিন্সিপালকে তিনি অভিযোগ করেছেন। অভিযোগ জানিয়েছেন কাঁথি থানার আইসি কেও।