২১শের ভাষাসৈনিক : সুরভি জাহাঙ্গীর।

0
443

তুমি কপালে লাল টিপ পরবে না..কেন?
যত সব অপসংস্কৃতির সংস্করণ।
তাহলে তোমার রক্তের রং লাল কেন?বেগুনি, হলুদ,সবুজ অথবা অন্য যে কোন রং নয় কেন?

খামোশ.. জমিলা!

কাল প্রভাতের প্রভাতফেরীতে ফুল হাতে ” ২১”শে এর “আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙ্গানো, একুশে ফেব্রুয়ারি.. আমি কি ভুলিতে পারি” গান গেয়ে নেচে নেচে ” শহীদ মিনারে” ফুল দিতে যাবে না?

কেন যাব না?

যত সব নাস্তিকের দল।
যত অনিষ্টের মূলে ঐ ১৯৫২ সালের ভাষার আন্দোলন।

কি কারণে?

সহি ভাষাতে কথা বলা কত সুন্নত!আজ যত সব পাপের ভাষায় কথা বলতে হয়।

কেন, মায়ের ভাষায় স্বাধীন ভাবে কথা বলা, দোষের কি আছে ?

কথায় কথায় তর্ক করবে না? চুপ! চুপ কর !

খামোশের ধমকের শোষকের শোষণের শাষণে.. শহীদ মিনার আজ কম্পিত!
মায়ের হৃদপিণ্ডে পূনরণে রক্ত ক্ষরণ!

আমি মুক্তির জমিলা!
নতুন দিনের, নতুন শপথের, সাহসের সৈনিক!
ঘরে ঘরে রণ ক্ষেত্র তৈরি করবোই!
জনে জনে সর্বজনে চরমপত্র পৌঁছে দেব!
ছদ্মবেশী দেশের দোসরের..দেশের মাটিতে বিচার করবোই।

জাতিকে নতুন আন্দোলনের ২১ শতকের ২১শের নতুন ফসল উপহার দেবই!

আমি মুক্তির জমিলা!
আমি রক্ত শপথের শ্লোগান!
“মায়ের ভাষা বৃথা যেতে দেব না! দেব না”!
“এক দফা এক দাবি.. মানতে হবে! মানতে হবে”!

(ঢাকা / বাংলাদেশ)