হাঁটুর যন্ত্রণার কারন ও তার নিরাময়ে এর উপায় : মুখোমুখি ডাঃ শ্রী সদ্যোজাত (সিনিয়র ফিজিও থেরাফিস্ট; এম.আই.এ.পি.)।

0
793

হাঁটুর যন্ত্রনা আজকাল প্রায় প্রত্যেকের ক্ষেত্রে লক্ষ করা যায়। কিন্তু এই যন্ত্রনার পেছনে বিভিন্ন কারন থেকে থাকে। আজ সেই কারনগুলির কয়েকটি দিক তুলে ধরলেন বিশিষ্ট ডাঃ শ্রী সদ্যোজাত(সিনিয়র ফিজিও থেরাফিস্ট; এম.আই.এ.পি.)।
প্রঃ- হাঁটুর যন্ত্রনা কেন হয়? কি কি কারনে হতে পারে?
উঃ- হাঁটুর যন্ত্রনা অনেক কারণেই হতে পারে,
এক্কেবারে অল্পবয়সী বাচ্ছাদের হাঁটুতে প্রচুর রকম ব্যথা হয় ।
বিশেষত রাত্রিবেলা ঘুমনোর সময় এছাড়া সারাদিনেও একটা ভীষণ রকম যন্ত্রণা হয় । একে আমরা সাধারণত ” গ্রোথ পেইন ” বলে থাকি ।
এছাড়া একটু বেশি বয়েসে খেলাধূলা করতে গিয়ে পড়ে যাওয়ার ফলে হাঁটুতে চোট আসে বা হাঁটু মচকেও যেতে পারে ।
তাছাড়া ও বেমরো হাঁটাচলা বা দৌড়াদৌড়ির ক্ষেত্রে হাঁটুতে যন্ত্রণা হতেই পারে ।
উপরে উল্লেখিত বিষয়গুলি কমবেশি সবারই হয় । কিন্তু বর্তমানে জনসংখ্যার প্রায় 80%মধ্যবয়স্ক থেকে প্রাপ্তবয়স্ক বা বৃদ্ধবৃদ্ধারা জয়েন্ট পেইন বা অস্টিও আর্থ্রাইটিস রোগে মাড়াত্মক ভাবে ভুগছে
আর একটি কারণেও হাঁটুতে যন্ত্রণা হতে পারে । সেটি হলো রিযুমট্যেট আর্থ্রাইটিস
প্রঃ-প্রতিকারের উপায়? শুধু ঔষধ খেলে কি নিরাময় হবে? না কি ব্যামও করতে হবে?
উঃ- হাঁটুর ব্যথাতে সেই ভাবে কোনরকম ওষুধ পত্র নেই বললেই চলে । তবে কিছু হোমিও প্যাথিক ওষুধ বা এলো প্যাথিক পেইন কিলার আপৎকালীন হিসাবে ভালোমন্দে ভালোই কাজ করে । তবে হঠাৎ যন্ত্রণা বা ব্যথাতে নিয়মিত ভাবে বরফের ব্যবহার বা হঠাৎ যদি হাঁটু ফুলে যায় আঘাত জনিত কারণে সেক্ষেত্রে ম্যাগনেসিয়াম সালফেড পাউডার গরমজলে মিশিয়ে ব্যবহার করলে দ্রুততার সাথে ব্যথা ও ফোলা দুই কমে যায় । তবে নিয়মিত ভাবে হাঁটুর ব্যায়াম বা এক্সসাইজ করলে বিশেষ উপকারে আসে । কারণ তাতে জয়েন্ট মোবিলিটি আবার আগের অবস্থায় ফিরে আসে ।
প্রঃ- কি ধরনের এক্সারসাইজ করা দরকার?
উঃ- সাধারণ হাঁটু ব্যথা বা যন্ত্রণার ক্ষেত্রে ব্যথা বা যন্ত্রণা এক্কেবারে কমে গেলেই ব্যায়াম প্রক্রিয়া শুরু করা উচিত ।
সাধারণত যন্ত্রণার ক্ষেত্রে
knee flexibility excrise .
Knee strengthening excrise .
Staighit leg rising excrise .
Osteoarthritis of knee ___
Isometric knee strengthening excrise .
Proper gait traing excrise .
Knee rhythmical flexibility excrise .
নিয়মিত দিনে দুবার 10 মিনিট করে বরফের ব্যবহার বা Icepack ব্যবহার করলে আরও উপকৃত হবার সম্ভবনা বেশি ।
প্রঃ- খাওয়া দাওয়ার ক্ষেত্রে কোন পরিবর্তন?
উঃ- খাওয়াদাওয়ার ক্ষেত্রে কম তেলের খাবার
দিনে একবেলা ভাত ও একবেলা রুটি
বেশি পরিমাণে জল পান করা
প্রচুর পরিমাণে সারবিহীন শাকসবজি খাওয়া হাঁটু শরীর ও হার্টের ক্ষেত্রে বিশেষ ভাবে জরুরী ।
অসংখ্য ধন্যবাদ জানাই ডাক্তার বাবু। আপনার সুস্থতা কামনা করি।
যোগাযোগ – 8240202624/9874711992

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here