মানবিক মূল্যবোধ (একটি পর্যালোচনা) : দিলীপ রায় (+৯১ ৯৪৩৩৪৬২৮৫৪)।

0
410

মানুষ সমাজবদ্ধ জীব । আর মূল্যবোধ হোলো রীতিনীতি ও আদর্শের মাপকাঠি, যেটা সমাজ ও রাষ্ট্রের ভিত্তি হিসাবে ধরা হয় । নীতি ভাল-মন্দের মধ্যে একটা স্পষ্ট পার্থক্য তৈরী করে । সুতরাং ভিত নড়বড়ে হলে, সমাজ ও রাষ্ট্রের ভারসাম্যহীনতার লক্ষণ সুস্পষ্ট । নৈতিকতা ও মূল্যবোধ আমাদের সমাজকে সকল প্রকার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংঘাত থেকে দূরে সরিয়ে রাখে । যার জন্য মানুষ তাদের নিজ নিজ সমাজে শান্তি ও সমৃদ্ধি নিয়ে বেঁচে থাকে । এখানেই মানুষের সমাজবদ্ধভাবে জীবন যাপনের সার্থকতা ।
নৈতিকতা বলতে এক কথায় বোঝায় নীতি সম্পর্কিত বোধ । এটি হল একটা মানবিক গুণাবলী । সমস্ত মানুষ তার পরিবার, পারিপার্শ্বিক পরিবেশ, সমাজ, রাষ্ট্র ও ধর্মের ওপর ভিত্তি করে তৈরী করে সুনির্দিষ্ট কিছু নিয়ম নীতি, যেটা মানুষ মেনে চলে । সমাজ বা রাষ্ট্র আরোপিত এই সব নিয়মনীতি মানুষের জীবনে প্রভাব ফেলে । এই সমস্ত নিয়মগুলো মেনে চলার প্রবণতা, মানসিকতা, নীতির চর্চাই হলো নৈতিকতা । অন্যদিকে অনেকে মনে করেন, নৈতিকতা ও মূল্যবোধ দুই-ই এক ও অভিন্ন । কিন্তু আসলে তা নয় । মানুষের প্রধান পরিচয় তার মনুষ্যত্ববোধ। আজকের আধুনিক মানুষের দৃষ্টিভঙ্গি বলা চলে নিজস্ব ‌স্বার্থপরতার দিকেই বেশী ঝোঁক । এর ফলে মানবিক মূল্যবোধ‌ গড়ে ওঠাটাই সমস্যা ! মূলত আমরা জানি, মানুষের অভিজ্ঞতা ও নিজস্ব শিক্ষা থেকেই মূল্যবোধ গড়ে ওঠে । এর মূল ভিত্তি হল ধর্ম, দর্শন, সমাজের নিজস্ব আদর্শ ও নিয়মনীতি এবং অবশ্যই শিক্ষাব্যবস্থা ।
মানবিক মূল্যবোধের নিরিখে দূরদৃষ্টির প্রসঙ্গ ভীষণ প্রাসঙ্গিক । অনেকে দূরদৃষ্টির মূল্যায়ন মানুষের ভাবনার নিরিখে করে থাকেন । এইজন্য মানুষের দূরদৃষ্টির নিরিখে তাঁদের মূল্যায়ন বিভিন্নভাবে পরিলক্ষিত । সু-দূরদৃষ্টি সব সময় কাম্য । সাদামাটা আমরা যেটা বুঝি, দূরদৃষ্টি ভাল রাখাটা নিজের ক্ষেত্রে, সমাজের ক্ষেত্রে এমনকি দেশের ক্ষেত্রে মঙ্গলজনক । বাড়ির সকল মানুষের দূরদৃষ্টি ভাল থাকলে বাড়িতে সুশৃঙ্খল জীবন যাপন নিশ্চিত । তাই দূরদৃষ্টি অর্থ আমরা বুঝি, কতকগুলি শব্দের অবতারনা যেমন বিচক্ষণতা, দূরদর্শিতা, ভবিষ্যৎ সমন্ধে আন্দাজ করা, কল্পনাশক্তি, ইত্যাদি ।
এবার আসছি, সমাজ বলতে আমরা কী বুঝি ? একাধিক মানুষের একত্রে বসবাসকে সমাজ বলে । অনেক সময় ধর্মের ভিত্তিতে সমাজ গঠিত হয় । তবে একথা ঠিক, একাধিক মানুষ একত্রিত হয়ে কিছু নিয়ম কানুনের মাধ্যমে বসবাস করাটাই সমাজ । সমাজ জীবনের উন্নয়নের নিরিখে সামাজিক পরিবর্তন অবশ্যাম্ভাবী । আমরা যেটা বুঝি, পরিবর্তনের সাধারণতঃ দুটো দিক —-একটা উত্তরণ আর একটা অবক্ষয় । সব দেশের সমস্ত জাতির মধ্যে এটা পরিলক্ষিত । আমাদের দেশের সামাজিক পরিবর্তনের দিকে তাকালে একই কথা প্রযোজ্য । আগের দিনে মানুষের জীবন যাত্রার অবস্থান যেটা ছিলো, আজকের দিনে তার অনেক পরিবর্তন । সমাজ জীবন এখন ডিজিটাল যুগের মধ্যে দিয়ে ধাবমান । চলমান জীবনে ডিজিটাল যুগের সুযোগ সুবিধা সুস্পষ্ট । যার ফলে বিশ্ব এখন হাতের মুঠোয় । যোগাযোগ ব্যবস্থা এতটাই উন্নত, যার জন্য নিমেষে সারা বিশ্বের খবর কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে করতলগত । তবুও ডিজিটাল যুগে এসে আমরা লক্ষ্য করছি, মোবাইল ব্যবহারের ক্ষেত্রে ছেলেমেয়েদের স্বাভাবিক জীবন যাত্রায় আশাতীত ব্যাঘাত । যেহেতু মোবাইলের খুঁটিনাটি তাদের কন্ঠস্থ, তাই তাদের মধ্যে মোবাইল ব্যবহারের কুপ্রভাব বাড়-বাড়ন্ত । যার ফলে তাদের পড়াশুনার ক্ষেত্রে নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে । এটা এক ধরনের নৈতিক অবক্ষয় । এইজন্য বলা চলে অবক্ষয়ের গতিধারা তার নিজস্ব ঢঙে প্রবাহমান ।
অন্যদিকে অবক্ষয় শব্দের আভিধানিক অর্থ ‘ক্ষয়প্রাপ্তি’। ক্ষয়ে যাওয়া যেটাকে আমরা বলতে পারি পতন ঘটে যাওয়া, বিপর্যয় হয়ে যাওয়া । সামাজিক মূল্যবোধ তথা সততা, কর্তব্য পরায়নতা, নিষ্ঠা, ধৈর্য, উদারতা, শিষ্টাচার, সৌজন্যবোধ, নিয়মানুবর্তিতা, অধ্যবসায়, ইত্যাদি গুণাবলী নষ্ট হয়ে যাওয়াটাই সামাজিক অবক্ষয় । অবক্ষয়ের দিকে তাকালে দেখা যায় মানবিক অবক্ষয়, সামাজিক অবক্ষয়, মূল্যবোধের অবক্ষয়, নৈতিকতার অবক্ষয়, জাতীয় আদর্শের অবক্ষয়, ইত্যাদি ।
অবক্ষয় ঘটতে পারে অনেকগুলি কারণে । তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য সুশিক্ষার অভাব, মাদকের আসক্তি, বেকার সংখ্যা বৃদ্ধি, অপসংস্কৃতির অনুকরণ, দুর্নীতি ও অনৈতিকতার অনুশাসন, ইত্যাদি । পরিবার, সমাজ এমনকি রাষ্ট্রে অশান্তির মূল কারণ হচ্ছে নৈতিক মূল্যবোধের অবক্ষয়। নৈতিকতা ছাড়া আমাদের শান্তি ও মুক্তির পথ দিবাস্বপ্নের ন্যায় । তাই নৈতিক মূল্যবোধ চর্চায় এবং নৈতিকতা উন্নয়নে এগিয়ে আসাটা সকলের আশুকর্তব্য ।
পরিশেষে যেটা বলার, আগামীদিনে আমাদের জীবন যেন সুন্দর ও মানবিক মূল্যবোধে উজ্জ্বল হয়ে ওঠে । এইজন্য নজর দিতে হবে যথাযথ শিক্ষা ব্যবস্থার । শিক্ষার্থীদের সামনে রাখতে হবে নিত্যনতুন নৈতিক মূল্যবোধের আদর্শ । নৈতিক মূল্যবোধ প্রতিষ্ঠায় সবাইকে হতে হবে সচেতন, উদ্যেগী ও সক্রিয় তবেই সমাজ ও রাষ্ট্র আরও মজবুত ও শক্তশালী হবে ।
—————-০—————-

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here