শাসক দলের গোষ্ঠী কোন্দলের জেরে গুলি,উতপ্ত গোসাবা, আটক ৯।

0
359

সুভাষ চন্দ্র দাশ,ক্যানিং – তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দলের জেরে এবার প্রকাশ্যে গুলি ইট-পাটকেল বৃষ্টির ঘটনা ঘটায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়েছে গোসাবা থানা এলাকার বেলতলি বাজারে। সোমবার সন্ধ্যায় যখন শম্ভুনগর গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার তৃণমূলের নেতা বরুণ ওরফে চিত্ত প্রামানিক পাশের পাঠানখালী গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার একটি তৃণমূলের দলীয় কার্য্যালয় থেকে দলীয় কর্মী সমর্থকদের নিয়ে শম্ভুনগরে নিজের বাড়ির দিকে ফিরছিলেন অভিযোগ, ঠিক সেই সময আচমকাই বেলতলি বাজার এলাকায় তার প্রতিপক্ষ তৃণমূলের নেতা পরিতোষ হালদার এর নেতৃত্বে ব্যাপক গুলিগোলা চালানো হয়।ইটপাটকেলও ছোড়া হয়। পরিস্থিতি এমন পর্যায়ে যায় যে, বরুণ ওরফে চিত্ত বাবুর ব্যক্তিগত দেহরক্ষীও শূন্যে এক রাউন্ড গুলি চালায় বলে জানা গিয়েছে। এলাকায় আচমকাই গোলাগুলি চালায় সমস্ত দোকানপাট বন্ধ রেখে প্রাণ বাঁচাতে দৌড়ঝাঁপ শুরু করে ব্যবসায়ীরা ও বাজারে আসা ক্রেতা- বিক্রেতারা। এলোপাতাড়ি গুলি চালানোর ঘটনায় কয়েকটি দোকানে শাডারে গুলি লাগে।তবে এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত কেউ গুলিবিদ্ধ হয়নি বলে খবর। এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা থাকায় ঘটনাস্থলে পৌঁছায় ক্যানিংয়ের মহকুমা পুলিশ আধিকারীক ও গোসাবা থানার ওসির নেতৃত্বে বিশাল পুলিশবাহিনী। অভিযুক্ত তৃণমূল নেতা পরিতোষ হালদার ও তার সঙ্গী সাথীদের খোঁজে এই মুহূর্তে তল্লাশি চালানো হচ্ছে। তবে গন্ডগোলের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ৮ জন ও বরুণ ওরফে চিত্ত প্রামাণিকের ব্যক্তিগত দেহরক্ষী সহ মোট ৯ জন কে আটক করেছে পুলিশ।