কোচবিহারে ফের তৃণমূলের জেলা সভাপতি বদল, দায়িত্ব পেলেন পার্থ।

0
277

মনিরুল হক, কোচবিহারঃ ফের কোচবিহারে তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতির দায়িত্ব পেলেন উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন সংস্থার চেয়ারম্যান পার্থ প্রতিম রায়। আজ কলকাতা নজরুল মঞ্চে তৃণমূল কংগ্রেসের সাংগঠনিক সভা হওয়ার পরেই এমনই খবর চাউর হয়েছে কোচবিহারে। বর্তমান জেলা সভাপতি গিরীন্দ্রনাথ বর্মণকে জেলা কমিটির চেয়ারম্যান করে পার্থ প্রতিম রায়কে জেলা সভাপতি ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী।
অন্যদিকে ওই জেলা চেয়ারম্যান দায়িত্বে থাকা দিনহাটার বিধায়ক উদয়ন গুহকে অন্য কোন সাংগঠনিক পদ দেওয়া হবে কিনা, তা নিয়ে তৃণমূল সূত্রে এখনও কোন তথ্য পাওয়া যায়নি। পাশাপাশি রাজ্যের নতুন কমিটিতেও রাজ্য সহ সভাপতির দায়িত্বে রাখা হয়েছে কোচবিহারের বর্ষীয়ান তৃণমূল কংগ্রেস নেতা রবীন্দ্রনাথ ঘোষকে। আজ নজরুল মঞ্চে দলের সাংগঠনিক সভায় খোদ তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্য কমিটির দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতৃত্বের নাম ঘোষণা করেছেন।
২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচনে পরাজয়ের পর থেকেই কোচবিহারে একাধিকবার তৃণমূলের জেলা সভাপতির পরিবর্তন করা হয়েছে। ওই সময় রবীন্দ্রনাথ ঘোষকে সরিয়ে বিনয় কৃষ্ণ বর্মণকে, বিনয় কৃষ্ণ বর্মণের পরে পার্থ প্রতিম রায়কে জেলা সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয়। পার্থ প্রতিম রায়ের নেতৃত্বে কোচবিহারে বিধানসভা নির্বাচন হয়। ওই নির্বাচনে জেলায় ৯ টি আসনের মধ্যে মাত্র দুটি আসনে জয় মেলে তৃণমূলের বাকি ৭ আসনে জয়ী হয় বিজেপি। এরপরে ফের জেলা সভাপতি বদল করে তৃণমূল নেতৃত্ব। দায়িত্ব দেওয়া হয় বিশিষ্ট শিক্ষক তথা মনিষী পঞ্চানন বর্মা গবেষক গিরীন্দ্রনাথ বর্মণকে। তাঁর নেতৃত্বে কোচবিহারে পুরসভা নির্বাচনে জেলার ৬ টি পুরসভাতেই ক্ষমতা দখল করে তৃণমূল কংগ্রেস। পুর ভোটের পর এদিন কোলকাতায় তৃণমূল প্রথম সাংগঠনিক বৈঠকে ফের কোচবিহার জেলা সভাপতি পদে পার্থ প্রতিম রায়কে ফিরিয়ে আনা হল।