লরির চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হল এক সিভিক ভলেন্টিয়ারের ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য।

0
333

নদীয়া, নিজস্ব সংবাদদাতা:-  লরির চাকায় পিষ্ট হয়ে মৃত্যু হল এক সিভিক ভলেন্টিয়ারের এর ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য। ঘটনাটি শান্তিপুর ফুলিয়া ও উদয়পুর মধ্যস্থ ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কে। সূত্রের খবর এদিন ভোর রাতে ওই এলাকার ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কের উপরে এক যুবককে ক্ষতবিক্ষত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা। এরপর ছুটে গিয়ে দেখেন ওই যুবক লরির চাকায় পিষ্ট হয়েছে, জানা যায় ওই যুবকের বাড়ি কৃষ্ণগঞ্জ থানা এলাকার নাথপুর গ্রামে। গতকাল তার এক বন্ধু অসুস্থ হয়ে যাওয়ার কারণে শক্তিনগর হাসপাতালে নিয়ে যায় ওই যুবক। সেখান থেকেই আরেক বন্ধুকে বাইকে করে নিয়ে রানাঘাটে শ্বশুরবাড়ি উদ্দেশ্যে যাচ্ছিল। কিন্তু এই দুর্ঘটনার কথা জানতে পারিনি পরিবার। বৃহস্পতিবার সকালে ওই যুবকের মৃতদেহ শনাক্ত হওয়ার পর জানতে পারে পরিবার। স্বভাবতই মৃত্যুর খবর পেয়ে কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে গোটা পরিবার এছাড়াও শোকস্তব্ধ গোটা এলাকা। ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কের উপর থেকে মৃতদেহটি উদ্ধার করে শান্তিপুর থানার পুলিশ, এছাড়াও ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানোর ব্যবস্থা করে। জানা যায় মৃত যুবকের নাম রাজীব বিশ্বাস বয়স আনুমানিক ৩০ বছর। ওই যুবক নদীয়ার কৃষ্ণগঞ্জ থানার কর্মরত সিভিক ভলেন্টিয়ার। পরিবারের একমাত্র রোজগেরে ছেলের এইভাবে অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় হতবাক গোটা পরিবার। যদিও খবর পেয়ে শান্তিপুর থানায় ছুটে আসে ওই সিভিক ভলেন্টিয়ার এর পরিবার। জানা যায় এই দুর্ঘটনা ঘটার পরে ঘাতক লরি চালক ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।