নদীয়ার শান্তিপুরে টিনের চাল বেড়ার ঘরেই অল বেঙ্গল যোগা চ্যাম্পিয়নের তৃতীয় পুরস্কার।

0
541

নদীয়া, নিজস্ব সংবাদদাতাঃ- আজ থেকে ঠিক দুবছর আগে লকডাউন এরমধ্যে নদীয়ার শান্তিপুরের যোগা প্রশিক্ষক সৌম্য নাথ হরিপুর পঞ্চায়েতের মেলার মাঠ এলাকায় একটি যোগা অনুশীলন কেন্দ্র স্থাপনের সময় নানান বাধার সম্মুখীন হয়েছিলেন। বিভিন্ন প্রান্তিক পরিবারদের বাসস্থান হওয়ার কারণে অনেকেই রাজি ছিলেন না সন্তানদের যোগা শেখানোর ব্যাপারে। অথচ আজ পেশায় টোটো চালক সুনীল সরকারের টিনের চাল বেড়ার ঘরে অল বেঙ্গল যোগা চ্যাম্পিয়ন সেকেন্ড রানার আপ পুরস্কার।
গতকাল বর্ধমান জেলার কালনা রাজবাড়ী প্রাঙ্গণে কান্ডারী নেতাজি সংস্কৃতি সংস্থা আয়োজন করেছিলেন এই প্রতিযোগিতা। পরিচালনার ভূমিকায় ছিলেন কালনার যোগ তীর্থ ক্লাব এবং হাওড়ার কিপ ফিট ক্লাব। সারা রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে 485 জন অংশগ্রহণকারী 5 থেকে 9 ,9 থেকে 13, 13 থেকে 17 এবং 17 র ঊর্ধ্বে ছেলেমেয়েরা প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে। 5 থেকে 9 বালক বিভাগে 130 জনের মধ্যে প্রথম হয় শান্তিপুরের অর্ক সরকার। এরপর ওই চারটি গ্রুপ থেকে মোট 24 জনের মধ্যে যোগার ভাষায় সেকেন্ড রানার-আপ অর্থাৎ আমরা সর্বসাধারণ যাকে তৃতীয় বলে বলে জানি।
স্বভাবতই ওই অঞ্চলে আজ সকাল থেকে বইছে খুশির হাওয়া। আশেপাশের বিভিন্ন পরিবারের ছেলেমেয়েরাও দেখতে এসে অনুপ্রাণিত হচ্ছে বলে জানান এলাকাবাসী।
বাবা সুনীল সরকার জানান, সংসার চালাতে হিমশিম খাই, আগামী দিনে দেশে বিদেশে যেতে হলে সরকারি সহযোগিতা দরকার। যোগা প্রশিক্ষক সৌম্য নাথ বলেন, অনেক লাঞ্ছনা গঞ্জনা সহ্য করেও ছেলেমেয়েদের প্রতিভা খুঁজে বেড়াই, সরকারি সহযোগিতা পেলে পরিশ্রম সার্থক হবে আমাদেরও। যে পেশায় যাক না কেনো, আগামী প্রজন্মের ভবিষ্যৎ বর্তমান ছেলে মেয়েদের শরীর শিক্ষা অত্যন্ত প্রয়োজনীয়।