মুখ্যমন্ত্রীর নেশা মুক্ত ত্রিপুরা গড়ার স্বপ্নকে বাস্তবে রূপ দিতে চাইছে না একাংশ।

0
249

তেলিয়ামুড়া, রাহুল দাস:- যেখানে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব স্বপ্ন দেখছেন ত্রিপুরা রাজ্যকে নেশা মুক্ত রাজ্য হিসেবে গড়ে তোলার। অন্যদিকে দিনদিন তেলিয়ামুড়া শহর পরিণত হচ্ছে গাঁজা চাষের হটস্পটে। মুখ্যমন্ত্রীর স্বপ্ন বাস্তবায়নের লক্ষ্যে তেলিয়ামুড়া মহাকুমা পুলিশ আধিকারিক সোনাচরণ জমাতিয়া দীর্ঘদিন ধরেই একের পর এক নেশা বিরোধী অভিযান জারি রেখেছে । বৃহস্পতিবার‌ও এর ব্যতিক্রম হয়নি। তেলিয়ামুড়া থানাধীন কৃষ্ণপুর এবং চাকমা ঘাট এলাকায় সর্বমোট পাঁচটি গাজা বাগানে অভিযান চালিয়ে গাঁজা গাছগুলি ধ্বংস করে তেলিয়ামুড়া মহকুমা পুলিশ আধিকারিক সোনাচরন জমাতিয়ার নেতৃত্বে তেলিয়ামুড়া থানার পুলিশ ও বিশাল TSR বাহিনী।
তেলিয়ামুড়া মহকুমা পুলিশ আধিকারিক সোনা চরণ জমাতিয়া জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তেলিয়ামুড়া থানাধীন কৃষ্ণপুর এলাকায় গজিয়ে ওঠা দুটি গাজা বাগান থেকে 1000 গাঁজা গাছ এবং চাকমা ঘাট এলাকা থেকে 1500 হাজার সর্বমোট আড়াই হাজার গাঁজা গাছ ধ্বংস করে। যার বাজার মূল্য আনুমানিক আড়াই লক্ষ টাকা হতে পারে বলে জানা যায়।
কিন্তু বলাই বাহুল্য দীর্ঘদিন ধরে অভিযান চালিয়েও যেন একপ্রকার তেলিয়ামুড়া লাগামহীন গাঁজা চাষ বন্ধ করতে ব্যর্থ তেলিয়ামুড়া থানার পুলিশ।
এক বিশ্বস্ত সূত্রের খবর যে তেলিয়ামুড়া থানায় কর্তব্যরত এস আই প্রীতম দ‌ও নাকি তেলিয়ামুড়ার গাঁজা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে একটা গোপন লেনদেন রয়েছে।

তাছাড়া সূত্রের মারফত আরো জানা যায় যে, তেলিয়ামুড়া থানায় কর্তব্যরত এসআই প্রীতম বাবু শুধু গাঁজা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে লেনদেন‌ই নয়, উনি নাকি প্রায়শ‌ই তেলিয়ামুড়ার একাধিক গাঁজা ব্যবসায়ীদের সঙ্গে গোপন মিটিং-এ ও বসে থাকেন।
কিন্তু সমাজের সচেতন মহল জুড়ে এখন একটাই প্রশ্ন উঠছে প্রীতম বাবুদের মত অফিসারদের ভূমিকায় কি আদৌ আমাদের সকলের নেশা মুক্ত ত্রিপুরা গড়ার স্বপ্ন সার্থক হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here