সুপার স্পেশালিটিতে নিয়োজিত হলেন ১৪ জন চিকিৎসক।

0
119

তৃণ্ময় বেরা, ঝাড়গ্রাম: ঝাড়গ্রাম জেলা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে জন্য রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর নিয়োগ করেছে চিকিৎসক। ঝাড়গ্রাম জেলা সুপার স্পেশালিটি ছাড়াও গোপীবল্লভপুর সুপার স্পেশালিটিতে দু’জন এবং নয়াগ্রাম সুপার স্পেশালিটিতে তিনজন চিকিৎসক নিয়োগ করেছে রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর।
স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে খবর, ঝাড়গ্রাম জেলা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মেডিসিন, প্রসূতি, ক্যানসার, চক্ষু, নাক-কান ও গলা, শিশু রোগ, মানসিক রোগ বিশেষজ্ঞ-সহ মোট ১৪ জন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক নিয়োগ করা হয়েছে। ইতিমধ্যেই একজন শিশু বিশেষজ্ঞ, একজন মানসিক রোগ বিশেষজ্ঞ, একজন নাক, কান ও গলার বিশেষজ্ঞ এবং একজন প্যাথোলজিস্ট যোগ দিয়েছেন সেখানে।
জেলা মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক প্রকাশ মৃধা বলেন, ‘‘একসঙ্গে ১৪ জন চিকিৎসক পাওয়া বড় ব্যাপার। সবাই যদি যোগ দেন তাহলে হাসপাতালে চিকিৎসকের ঘাটতি কিছুটা মিটবে।’’ ঝাড়গ্রাম জেলা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালের সুপার ইন্দ্রনীল সরকারও বলেন, ‘‘চিকিৎসকের সমস্যার কথা স্বাস্থ্যভবনে জানানো হয়েছিল। ১৪ জন চিকিৎসককে দিয়েছে। কিন্তু কতজন চিকিৎসক যোগ দেন সেটাই এখন দেখার।’’
জেলা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে মেডিসিন, সার্জারি, প্রসূতি, অর্থোপেডিক, চক্ষু, নাক-কান-গলার মতো বিভাগগুলিতে চিকিৎসকের সংখ্যা খুবই কম। তাই বর্হিবিভাগে সবদিন চিকিৎসক বসেন না। বর্তমানে মেডিসিন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক মাত্র দু’জন রয়েছেন। তাঁদের পুরুষ, মহিলা, আইসোলেশন ওয়ার্ডে রাউন্ডের সঙ্গেই বর্হিবিভাগ সামালাতে হচ্ছে। মেডিসিন বহির্বিভাগ তিনদিন হয়। বক্ষ বহির্বিভাগ বন্ধ। একজন চিকিৎসক ছুটিতে চলে যাওয়ায় এখন শুধুমাত্র বুধবার ও শুক্রবার অর্থোপেডিকের বর্হিবিভাগ হচ্ছে। প্রসূতি ও চক্ষুর বহির্বিভাগ চারদিন খোলা। মানসিক রোগ বিভাগের বহির্বিভাগ দীর্ঘদিন ধরেই বন্ধ রয়েছে। চর্মের বহির্বিভাগ সোম, মঙ্গল ও শুক্রবার হয়। রেডিওলজিস্টের ঘাটতি থাকায় শুধুমাত্র অন্তঃসত্ত্বা মহিলাদের ইউএসজি হয় ওই সুপার স্পেশালিটিতে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here